এক বোতলের দাম ৩ কোটি!

সিবিকে ডেস্কঃ

একটি তামার বোতল। দাম হাঁকা হতো ২ থেকে তিন কোটি টাকা! তবে স্বাভাবিকভাবে নয় প্রতারণার মাধ্যমে। ক্রেতাদের জানানো হতো এটি ব্রিটিশ আমলের তৈরি একটি ম্যাগনেটের বোতল। এমন একটি প্রতারক চক্রের তিন সদস্যকে গ্রেপ্তার করেছে সাতকানিয়া থানা পুলিশ।

বৃহস্পতিবার দুপুরে উপজেলার কেরানীহাট রয়েল রিসোটের সামনে থেকে গ্রেপ্তার করা হয়। উদ্ধার করা হয় প্রতারণার কাজে ব্যবহৃত তামার তৈরি বোতল, ডিজিটাল লকার, নগদ ৫ লাখ টাকা।

গ্রেপ্তার তিন প্রতারক হলো- সাতকানিয়া পৌরসভা ১ নম্বও ওয়ার্ডের নুরুল আমিন, আনোয়ারার ডুমুরিয়া এলাকার মো. উল্লাহ ও পটিয়ার জিরি ইউনিয়নের খোরশেদ আলম।

পুলিশ জানিয়েছে, সাতকানিয়া পৌরসভার রামপুর ১ নম্বর ওয়ার্ড এলাকার নুরুল আমিনের কাছ থেকে ওই ধাতব বোতলটি কিনতে এসেছিল গ্রেপ্তার পটিয়ার জিরি ইউনিয়নের খোরশেদ আলম ও আনোয়ারার ডুমুরিয়ার মো. উল্লাহ। কেরানীহাটের রয়েল রিসোর্টের সামনে বিকিকিনির সময় হাতেনাতে তাদের ধরা হয়। প্রাথমিক জিজ্ঞাসাবাদে তারা বোতলটি নিয়ে অন্যজনের কাছে বিক্রির পরিকল্পনার কথা জানিয়েছে। ইতোপূর্বেও তারা এধরনের প্রতারণার ঘটনা ঘটিয়েছে।

সাতকানিয়া থানার অফিসার ইনচার্জ মো. আনোয়ার হোসেন বিষয়টি নিশ্চিত করে জানান, গ্রেপ্তার তিনজনই পেশাদার প্রতারক চক্রের সদস্য। এদের মধ্যে দুজন এটি কিনে নিয়ে অন্যজনের সঙ্গে প্রতারণার পরিকল্পনা করেছিল। তাদের বিরুদ্ধে মামলা দায়েরের প্রস্তুতি চলছে।